হেলেনা জাহাঙ্গীরের মামলা ডিবিতে হস্তান্তর

আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত নেত্রী হেলেনা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে করা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলার তদন্তভার ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা শাখায় (ডিবি) স্থানান্তর করা হয়েছে।

গুলশান থানার ওসি আবুল হাসান এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, “অধিকতর তদন্তের জন্য ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলাটি গতকাল রাতে ডিবিতে হস্তান্তর করা হয়েছে। ডিবির সাইবার ক্রাইম ইউনিট মামলাটি তদন্ত করবে।”

অন্যদিকে, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে পাঁচ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেছে পুলিশ। এছাড়া অনুমোদন ও বৈধ কাগজপত্র ছাড়া জয়যাত্রা টিভির সম্প্রচারের অভিযোগে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন আইনে পল্লবী থানায় করা মামলায়ও জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে।

কিন্তু হেলেনা জাহাঙ্গীর ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় চলা তিন দিনের রিমান্ড শেষে আদালতে হাজির করা হলে মাদক মামলায় গ্রেফতার দেখানোর আবেদনসহ পরবর্তী রিমান্ড শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

পল্লবী থানার ওসি পারভেজ ইসলাম বলেন, “অনুমোদন ও বৈধ কাগজপত্র ছাড়া জয়যাত্রা টিভির সম্প্রচার করায় টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের মামলা জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ডের আবেদন করা হলে আদালত শুনানির জন্য কাল মঙ্গলবার দিন ধার্য্য করেছেন।”

তিনি আরও বলেন, “একই মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের ভাই দুলাল শরীফকে হেফাজতে এনে বিভিন্ন বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের পর তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।”

প্রসঙ্গত, গত ২৯ জুলাই দিবাগত রাতে গুলশান-২ এর বাসা থেকে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। পরবর্তীতে ৩০ জুলাই তার বিরুদ্ধে গুলশান থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একটি এবং বিশেষ ক্ষমতা আইন, বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ আইন, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ও টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইনসহ চারটি ধারায় আরেকটি মামলা করা হয়েছে। এর মধ্যে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় তিন দিনের রিমান্ডে রয়েছেন তিনি। এর বাইরে পল্লবী থানায় আরও একটি মামলা করা হয়েছে।

শর্টলিংকঃ