মুজিব বর্ষের উপহার পাচ্ছেন অর্ধলক্ষাধিক পরিবার

নতুন বছর ২০২১ সালের জানুয়ারিতে মুজিববর্ষের উপহার পাচ্ছেন সারাদেশের ৫৯ হাজার ৮০৩টি গৃহহীন পরিবার। উপহার হিসেবে দুই রুমবিশিষ্ট সেমি-পাকা বাড়ি দেওয়া হবে। প্রতিটি বাড়ি নির্মাণে ব্যয় ধরা হয়েছে ১ লাখ ৭১ হাজার টাকা। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় ও অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে দেশের ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার পূনর্বাসনের জন্য উপকারভোগী নির্বাচন এবং গৃহনির্মাণকাজ সুষ্ঠভাবে বাস্তবায়নে গত ১৯ অক্টোবর সব বিভাগীয় কমিশনার ও জেলা প্রশাসকের সঙ্গে ভার্চুয়ালি সভা করেন প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস। সভায় মুখ্য সচিব আগামী জানুয়ারিতে প্রথম পর্যায়ে ৫৯ হাজার ৮০৩ পরিবারকে বাড়ি বুঝিয়ে দেয়ার জন্য ১৫ জানুয়ারির মধ্যে এসব ঘরের নির্মাণ কাজ শেষ করার নির্দেশ দেন। ১ হাজার ২২ কোটি ৬২ লাখ টাকা ব্যয়ে সারাদেশে ৫৯ হাজার ৮০৩টি বাড়ি নির্মাণ করা হবে।

সভার কার্যপত্র থেকে জানা যায়, প্রথম পর্যায়ে ঢাকা বিভাগে ৭ হাজার ৮৫, ময়মনসিংহে ৩ হাজার ৯২৯, চট্টগ্রামে ১০ হাজার ৯৬৩, রংপুরে ৭ হাজার ২৬৯, রাজশাহীতে ৬ হাজার ৭৭০, খুলনায় ৩ হাজার ৯৯০, বরিশালে ১০ হাজার ১৮৪ এবং সিলেট বিভাগে ৯ হাজার ৬১৩টি গৃহহীন পরিবারকে বাড়ি দেয়া হবে। প্রতিটি বাড়ি নির্মাণে ১ লাখ ৭১ হাজার টাকা ব্যয় হলেও সুবিধাভোগীকে কোনো টাকা খরচ করতে হবে না।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ৫৯ হাজার ৮০৩ পরিবারের জন্য সুষ্ঠুভাবে গৃহ নির্মাণ কাজ নির্দিষ্ট সময়ে বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ ২ প্রকল্প, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এবং ভূমি মন্ত্রণালয়কে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। ঢাকা, রংপুর ও বরিশাল বিভাগে ২৪ হাজার ৫৩৮টি গৃহ নির্মাণে আশ্রয়ণ প্রকল্পকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ৪১৯ কোটি ৬০ লাখ টাকা।

এছাড়া রাজশাহী, সিলেট ও খুলনা বিভাগে ২০ হাজার ৩৭৩টি বাড়ি নির্মাণে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের দুর্যোগ সহনীয় গৃহ নির্মাণ কর্মসূচিকে। এজন্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ৩৪৮ কোটি ৩৭ লাখ টাকা। এছাড়া চট্টগ্রাম ও ময়মনসিংহ বিভাগে ১৪ হাজার ৮৯২টি বাড়ি নির্মাণে ভূমি মন্ত্রণালয়ের গুচ্ছগ্রাম-দ্বিতীয় পর্যায় প্রকল্পকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে বরাদ্দ দেয়া হয়েছে ২৫৪ কোটি ৬৫ লাখ টাকা।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ-২ প্রকল্প পরিচালক মোঃ মাহবুব হোসেন বলেন, ‘গত জুনের তথ্য অনুযায়ী দেশের মোট ২ লাখ ৯৩ হাজার ৩৬১ পরিবার রয়েছে, যাদের ভূমিও নেই, জমিও নেই। তাদের মধ্য থেকে মুজিব বর্ষ উপলক্ষে প্রথম পর্যায়ে আমরা ৫৯ হাজার ৮০৩ গৃহহীন পরিবারকে বাড়ি দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। আশা করছি, আগামী জানুয়ারিতেই এসব পরিবারকে তাদের বড়ি বুঝিয়ে দিতে পারব।’

একটি বাড়িতে কী ধরনের সুবিধা থাকবে জানতে চাইলে তিনি জানান, ‘দুটো রুম, একটা রান্নাঘর এবং রুমের পেছনে টয়লেট থাকবে। এছাড়া টয়লেট ও রান্নাঘরের মাঝামাঝি জায়গায় একটা কমন স্পেস এবং সামনের দিকে বারান্দাও থাকবে। বাড়ির ফ্লোর ও দেয়াল পাকা, উপরে টিন থাকবে।’

শর্টলিংকঃ