মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি পেলেন আরো ১৭ বীরাঙ্গনা

মুক্তিযুদ্ধের সময় পাকিস্তানি বাহিনী ও তাদের দোসরদের হাতে নির্যাতিত হওয়ায় ১৭ বীরাঙ্গনাকে মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি দিয়ে সম্প্রতি গেজেট প্রকাশ করেছে সরকার।

নতুন করে স্বীকৃতি পাওয়া মুক্তিযোদ্ধারা হচ্ছেন কিশোরগঞ্জের মীরা রানী চৌহান, গাইবান্ধার শ্রীমতি কুলোবালা রানী দাস, কুষ্টিয়ার ময়না, মোছা. মাবিয়া খাতুন, মোছা. টগরজান ও জরিনা, গাজীপুরের সুরবালা, টাঙ্গাইলের জহুরা খাতুন, ঝিনাইদহের মোছা. রিজিয়া খাতুন, জয়পুরহাটের মোছা. আমেনা বেগম, গোপালগঞ্জের হেনা, সুনামগঞ্জের বসন্তী ধর, টাঙ্গাইলের শেফালী, সাতক্ষীরার মোছা. রাজিদা বেগম, ময়মনসিংহের শাহানাজ পারভীন, রানী বালা দাস ও শিরিন মমতাজ। জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) ৬৫তম সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বীরাঙ্গনারা এ স্বীকৃতি পান। এ নিয়ে মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি পাওয়া বীরাঙ্গনার সংখ্যা ৩৩৯ জন।

শর্টলিংকঃ