ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে প্রস্তুত শহীদ মিনার

আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা পরেই  রাত ১২টায় শুরু হবে ভাষা আন্দোলনের স্মৃতিবিজড়িত মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রথম প্রহর। এ উপলক্ষে ইতোমধ্যে প্রস্তুত হয়েছে ভাষা শহীদদের স্মৃতি বিজড়িত জাতীয় শহীদ মিনার।

সরেজমিনে দেখা যায়, মূল মিনারসহ চারদিকে রঙ করা হয়েছে। প্রস্তুত হয়েছে মূল বেদি। আলপনা ও সাজসজ্জার কাজও সম্পন্ন। আশপাশের দেয়ালে শোভা পেয়েছে ভাষা আন্দোলনের নানা স্লোগান, কবিতা, চিত্র। বিভিন্ন স্থানে সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। জোরদার করা হয়েছে নিরাপত্তা।

রাজধানীতে মূল বেদীর ঠিক বিপরীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের আবাসিক ভবনের দেওয়ালে লাল রং-এ লেখা হয়েছে আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি।

আরও রয়েছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, কাজী নজরুল ইসলাম, সুকান্ত ভট্টাচার্য, শামসুর রহমান, আবুল ফজল, ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত, জসীম উদ্‌দীন, আবু জাফর ওবায়দুল্লাহ, মুনীর চৌধুরী, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, জীবনানন্দ দাশ, ধীজেন্দ্রলাল রায়, আবুল মনসুর আহমদ, মুহম্মদ শহীদুল্লাহ, অতুলপ্রাসাদ সেন, মাইকেল মধুসূদন দত্তসহ বিখ্যাত মনিষীদের ভাষা নিয়ে বিভিন্ন উক্তি।

অপরদিকে, প্রতিবার শ্রদ্ধা জানানোর কর্মসূচি উদ্বোধন করতেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী। এবার করোনার কারণে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী আসছেন না। তাদের পক্ষ থেকে সামরিক সচিব ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানাবেন।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও অমর একুশে উদযাপনের কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক ড. গোলাম রব্বানী বলেন, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে সামরিক সচিব শ্রদ্ধা নিবেদন করবেন। এর পরে সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ। সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে শ্রদ্ধা জানানোর অনুরোধ করেন তিনি।

শর্টলিংকঃ