পরীক্ষা ছাড়াই ফল প্রকাশে সংসদে বিল উত্থাপিত

দেশে মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে বিশেষ পরিস্থিতিতে পরীক্ষা ছাড়াই এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের আইন সংশোধনী সংসদে উত্থাপন করেছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি।

আইনগুলো যাচাই-বাছাই করে আগামী দুই দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে সংসদীয় স্থায়ী কমিটিকে নির্দেশ দিয়েছে সংসদ। আজ বেলা ১১টায় সংসদের একাদশ অধিবেশনের শুরুতে বিলটি উত্থাপন করা হয়।এ ফল প্রকাশ করতে তিনটি পৃথক বিল উত্থাপন করেন শিক্ষামন্ত্রী। তবে এ বিলের বিরোধীতা করেন জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য ফখরুল ইমামসহ বিরোধী দলের সংসদ সদস‌্যরা।

এসময় শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘এই বিল অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। কারণ, এইচএসসি -এর ফলের জন্য শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা অপেক্ষা করছেন। ফল প্রস্তুতও আছে। কিন্তু আইনে পরীক্ষা গ্রহণপূর্বক ফল দেওয়ার বিষয়টি ছিল।কিন্তু এবার বৈশ্বিক সংকটের কারণে পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হয়নি। আমরা বিকল্প একটি পদ্ধতিতে আগের দুটি পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে এই ফল দিতে যাচ্ছি, সে কারণে বর্তমান আইনটি সংশোধন করার প্রয়োজন দেখা দিয়েছে।’

কার্যপ্রণালী বিধির ৭৭ (ঙ) অনুসরণ না করায় সংসদ সদস্যদের অধিকার খর্ব করা হয়েছে মন্তব্য করে বিরোধী দলীয় সংসদ সদস্য ফখরুল ইমাম বলেন, ‘এই বিলটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই বিলের বিরুদ্ধে আমি নই। কিন্তু এখানে কার্যপ্রণালী বিধির ৭৭ এর (ঙ) অনুসারে যেকোনো বিল ৩ দিন আগে পাওয়ার কথা ছিল আমার। কিন্তু তা আমি পাইনি। কালকেও আমি খুঁজেছি- পাইনি।’

এর জবাবে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, ‘আমার অনুমতি সাপেক্ষেই বিলটি এসেছে। কেননা এর কিছু গুরুত্ব আছে। এই তিনটি বিল আমাদের পাস করে দিতে হবে।’

শর্টলিংকঃ