নওগাঁয় চার বছরের শিশু ধর্ষণ, গ্রেপ্তার ১

নওগাঁ সদর উপজেলায় চার বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় অভিযুক্ত মো. রায়হান (৩০) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। গ্রেপ্তার রায়হান উপজেলার রজাকপুর মধ্যপাড়া গ্রামের মো. মোখলেছুর রহমান ছেলে। বুধবার বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর মডেল থানার ওসি নজরুল ইসলাম জুয়েল।

এর আগে মঙ্গলবার রাতে উপজেলার মাদারমোল্লা এলাকা থেকে অভিযুক্ত ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়। রাতেই নির্যাতিত শিশুটির বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন।থানা-পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নির্যাতিত শিশুটির পরিবার অভিযুক্ত রায়হানের পূর্বপরিচিত। সেই সুবাদে দীর্ঘদিন থেকেই রায়হান নামের ওই ব্যক্তি শিশুটির বাড়িতে যাতায়াত ছিল। মঙ্গলবার সকাল ১০ টার দিকে শিশুটিকে রায়হান তার নিজ বাড়ী রজাকপুর গ্রামে ঘুরতে নিয়ে গিয়ে শারীরিক নির্যাতন করেন। সারাদিন পর বিকেলে শিশুটিকে তাঁর বাড়িতে পৌঁছে দেয় অভিযুক্ত রায়হান।

শিশুটি বাড়িতে গিয়ে কান্নাকাটি শুরু করে এবং তাকে শারিরীক নির্যাতনের বিষয়টি তার পরিবারকে জানায়।পরে সন্ধ্যার দিকে শিশুটির বাবা অভিযুক্ত রায়হানকে ওই এলাকার মাদারমোল্লা বাজারে ডেকে স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় তাকে আটক করে থানা-পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ অভিযুক্ত রায়হানকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। এ ঘটনায় রাতেই শিশুটির বাবা তার মেয়েকে ধর্ষনের অভিযোগে থানায় রায়হানের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

এবিষয়ে নওগাঁ সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মাসুদ বলেন, ‘খবর পেয়ে মাদারমোল্লা এলাকা থেকে ধর্ষনের অভিযোগে রায়হানকে আটক করা হয়। রাতে শিশুটির বাবা বাদি হয়ে থানায় ধর্ষণ মামলা করেছেন। প্রাথমিক জিজ্ঞেসাবাদে গ্রেপ্তারকৃত রায়হান শিশুটিকে নির্যাতন করার বিষয়টি স্বীকার করেছেন।
নওগাঁ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) নজরুল ইসলাম জুয়েল জানান, নির্যাতিত শিশুটির বাবা রায়হান নামের ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেছেন।সেই মামলায় রায়হানকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। নির্যাতনের শিকার শিশুটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।বুধবার দুপুরে গ্রেপ্তারকৃত রায়হানকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

শর্টলিংকঃ