জিম্বাবুয়েকে হোয়াইটওয়াশড করল বাংলাদেশ

খেলেছেন হাঁটুর ইনজুরি নিয়ে। অথচ তামিম ইকবালের ব্যাটিং দেখে আজ কে বা বুঝবে সেটা। সেই পুরনো খান সাহেব ফিরলেন আজ জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে। আক্রমণাত্মক ও দাপুটে ব্যাটিং। সোহানকে কেন খেলানো হচ্ছে না তা নিয়ে অনেক কথা হয়েছে। আজ সুযোগ পেয়েই তা কাজে লাগালেন তিনি।

এদিন তামিম খেললেন ক্যারিয়ারের সবচেয়ে আক্রমণাত্মক শতক। অধিনায়ক হিসেবেও এটি তার প্রথম শতক। বাংলাদেশের ইনিংসের ৩০তম ওভারে টেন্ডাই চাতারার বলে ড্রাইভ করে তামিম পৌঁছে যান মাইলফলকে। ১১ ম্যাচ পর শতকের দেখা পেলেন তামিম।

এর আগে নিজের সবশেষ সেঞ্চুরিটি করেছিলেন ২০১৯ সালের মার্চে। সিলেটে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের শেষ দুই ম্যাচে সেঞ্চুরি হাঁকান তামিম। আজ মঙ্গলবার হারারেতে তুলে নিলেন নিজের ওয়ান ক্যারিয়ারের ১৪তম সেঞ্চুরি। ৮৭ বলে তিন অঙ্কের কোটা ছুঁতে ৭টি চারের সঙ্গে ৩টি ছক্কা মারেন তামিম।

শতকের পর অবশ্য ইনিংস খুব বেশি লম্বা করতে পারেননি তামিম। পরপর আউট হন তামিম ও মাহমুদুল্লাহ। সোহান মিথুন এবং আফিফকে নিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন। সোহান শেষ পর্যন্ত অপরাজিত থাকেন ৩৯ বলে ৪৫ রান করে। আর এতে ৩-০ তে সিরিজ জিতলো বাংলাদেশ।

শর্টলিংকঃ