চুরির অপবাদে কৃষককে পিটিয়ে হত্যা

বাথরুম-গোসল খানার বদনা-বালতি ও গামলা চুরির অপবাদ দিয়ে গাইবান্ধার সাঘাটায় এনামুল হক (৪২) নামে এক কৃষককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। রোববার (১৫ নভেম্বর) দুপুরে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

স্থানীয়রা জানান, গতকাল রাতে সাঘাটা উপজেলার কচুয়া ইউনিয়নের রামনগর গ্রামের মওলা মিয়ার ছেলে দিনমজুর এনামুল মিয়ার বাড়িতে যায় প্রতিবেশি মৃত সাফি মিয়ার ছেলে এনামুল হক । পরে তাকে স্থানীরা চোর সন্দেহ করে বাথরুমের বদনা, বালতি ও উঠানে পড়ে থাকা গামলা চুরির অপবাদ দেয়। এসময় ওই বাড়ির লোকজনের চিৎকারে প্রতিবেশি নুরুল ইসলাম, খোকা মিয়া ও শহিদুল ইসলাম এসে তাকে বেধরক মারপিট ও মাথায় আঘাত করে। পরে সেখানেই এনামুল হক জ্ঞান হারিয়ে ফেলে।

কচুয়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য হাবিবুর রহমান জানান, রাতেই নিহত এনামুলকে উদ্ধার করে সাঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তি করায় স্থানীয়রা। পরে সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে দুপুরে তাকে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান সেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

নিহত এনামুল হকের স্ত্রী ফরিদা বেগমের বলেন, আমার স্বামীকে অন্যায়ভাবে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আমার স্বামী মানুষের জমিতে কাজ করে সংসার চালাতো। সে চোর নয়; চুরি করতে পারে না।

মৃত্যূর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন সাঘাটার বোনারপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই এনায়েত কবির জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে। মরদেহের শরীর ও মাথায় একাধিক আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। ময়না তদন্ত শেষে বিস্তারিত জানা যাবে ।

শর্টলিংকঃ