কুড়িগ্রামে শিক্ষকের বিরুদ্ধে শীলতাহানীর চেষ্টা অভিযোগ

[প্রতিকী ছবি]
কুড়িগ্রাম :কুড়িগ্রামের উলিপুরের শাহআলম মুকুল নামে এক সহকারী শিক্ষক বিরুদ্ধে পঞ্চম শ্রেনীর ছাত্রীর শীলতাহানীর চেষ্টার   অভিযোগ উঠেছে । ঘটনাটি ১লক্ষ টাকা রফাদফা হলেও অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় এলাকাবাসী বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠছে।তারা অনিতিবিলম্ভে ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি করেন।

স্থানীয়রা জানান, উপজেলার গুনাইগাছি ইউনিয়নের নাগদাহ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শাহ আলম মুকুল ২৯ মার্চ বিদ্যালয় চলাকালীন সময় ফাকা একটি কক্ষে পঞ্চম শ্রেনীর ছাত্রীকে ডেকে নিয়ে শ্লীলতাহানির চেষ্ঠা চালায়।  এ সময় ওই ছাত্রীর চিৎকার শুনে ছাত্র/ছাত্রী,অন্যান্য শিক্ষকরা ছুটে আসে।বিষয়টি নিয়ে অভিযুক্ত শাহআলমের সাথে মুঠোফোনে কথা বলার চেষ্টা করা হলে, তিনি কথা বলতে রাজি হননি।

বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মাহফুজার রহমান জানান, অভিযোগ সত্য হলে প্রয়োজনিয় ব্যাবস্হা নেওয়া হবে। প্রধান শিক্ষক আব্দুল মালেক জানান, ঘটনার সময় তিনি বিদ্যালয়ে উপস্হিথ ছিলেন না। তবে বিষয়টি সর্ম্পকে অনেকেই জানিয়েছেন। এ দিকে ঘঠনার সাতদিন অতিবাহিত হওয়ার পরও প্রশাসনিক ভাবে নেওয়া হয়নি কোন ব্যাবস্হা। উপজেলা প্রথমিক শিক্ষা অফিসার নজরুল ইসলাম জানান,আমি সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে তদন্তর জন্য পাঠিয়েছি।

শর্টলিংকঃ